চুয়াডাঙ্গার মোমিনপুরে পূর্ব বিরোধের জেরে মারামরি, আহত ৩


আজকের চুয়াডাঙ্গা ➤ নিজস্ব প্রতিবেদক প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২৭, ২০২৩, ১০:০০ পূর্বাহ্ণ
চুয়াডাঙ্গার মোমিনপুরে পূর্ব বিরোধের জেরে মারামরি, আহত ৩

চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার মোমিনপুরে পূর্ব বিরোধের জেরে মারামারি ঘটনায় তিনজন জখম
হয়েছেন। মঙ্গলবার (২৭ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে নয়টার দিকে মোনিপুর মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়।

আহতরা হলেন- মোমিনপুর ইউনিয়নের বোয়ালমারী গ্রামের মৃত রুহুল আমিনের ছেলে হাফিজুর রহমান হিটু (৪১), একই গ্রামের মজিবর রহমানের ছেলে তরিকুল ইসলাম (৪০) ও ইলিয়াস হোসেনের ছেলে ও রাজিব হাসান বঙ্গ (৩৮)।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে হাফিজুর রহমান হিটু ও তার বন্ধু তরিকুল ইসলাম মোমিনপুর পিটিআই মোড়ে ওষুধ কেনার জন্য যায়। এসময় স্থানীয় কয়েকজন যুবকের
সঙ্গে তাদের বাগবিতন্ডার সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে মোনিপুর মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের সামনে
মারামারির ঘটনাটি ঘটে। চিৎকার শুনে অনেকে সেখানে ছুটে যায় এবং মারামারি ঠেকানোর সময়
বঙ্গ আহত হন।

নিশান নামের এক যুবক বলেন, হিটু ভাই ওষুধ কিনতে মোড়ে গিয়েছিলো। এসময় পূর্বের কোনো একটি ঘটনার জেরে এলাকার কয়েকজন যুবকের সঙ্গে হিটু ভাইয়ের বাগবিতন্ডার সৃষ্টি হয়।একপর্যায়ে ওরা ১০-১৫ জন জড় হয়ে হিটু ভাইসহ তিনজনকে রড ও কাঠের বাটাম দিয়ে পিটিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়দের সাহায্যে জখম তিনজনকে হাসপাতালে আনি।

চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ওসামা জালাল বলেন, রাত
১০টার পরে জখম অবস্থায় তিনজন জরুরি বিভাগে আসে। তাদের মধ্যে হাফিজুর রহমান নামের এক ব্যক্তির দুই পায়ে কাঠ জাতীয় কিছুর একাধিক জখমের চিহ্ন পাওয়া গেছে। জখম গুরুতর হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। একই সময়ে জখম আরও দুজনকে জরুরি বিভাগ থেকে প্রাথমকি চিকিৎসা দিয়ে বাড়ি পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে মোমিনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, যতদূর
জেনেছি পূর্ব বিরোধের জেরে এলাকার একদল বখাটে তাদের পিটিয়ে জখম করেছে। আহত তিনজনের খোঁজ নিতে ঘটনার পরেই হাসপতালে গিয়েছিলাম। জনশ্রুতি আছে যারা মেরেছে তারা নিজেদের ছাত্রলীগ বললেও মূলত তারা লাটাহাম্বার চালকসহ বিভিন্ন কাজকর্ম করে।

ঘটনা সম্পর্কে চুয়াডাঙ্গা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ সেকেন্দার আলী বলেন, এ বিষয়ে থানায় একটি অভিযোগ হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আজকের চুয়াডাঙ্গা এর সংবাদ সবার আগে পেতে Follow Or Like করুন আজকের চুয়াডাঙ্গা এর ফেইসবুক পেজ এ , আজকের চুয়াডাঙ্গা এর টুইটার এবং সাবস্ক্রাইব করুন আজকের চুয়াডাঙ্গা ইউটিউব চ্যানেলে